Spread the love
image_pdfimage_print

আইসিসি চ্যাম্পিয়নস ট্রফির নিউজিল্যান্ড-অস্ট্রেলিয়ার ম্যাচটি বৃষ্টির কারণে পরিত্যেক্ত ঘোষণা। চ্যাম্পিয়নস ট্রফির দ্বিতীয় ম্যাচে ভালোভাবেই হানা দিয়েছে বৃষ্টি। শুরুতে নিউজিল্যান্ডের ইনিংসে বৃষ্টির বাধায় ম্যাচের দৈর্ঘ্য কমিয়ে আনা হয়েছিল ৪৬ ওভারে। এরপর অস্ট্রেলিয়ার ইনিংস শুরু হওয়ার আগেই হয়ে গেছে আরেক পশলা বৃষ্টি। ফলে ম্যাচের দৈর্ঘ্য কমিয়ে আনতে হয়েছে আরেক দফায়। নতুনভাবে অস্ট্রেলিয়ার সামনে জয়ের লক্ষ্য নির্ধারিত হয়েছিল ২৩৫ রান।

সেই লক্ষ্য ব্যাট করতে নেমেও স্বস্তিতে থাকতে পারেননি অস্ট্রেলিয়ার ক্রিকেটাররা। নয় ওভার পর এজবাস্টনে আবার হানা দিয়েছে বৃষ্টি। ফলে তৃতীয় দফায় বন্ধ রাখতে হয়েছিল ব্যাট-বলের লড়াই। শেষপর্যন্ত এই বৃষ্টি আর না থামায় ম্যাচটি পরিত্যক্ত ঘোষণা করতে বাধ্য হয়েছেন আম্পায়াররা। পয়েন্ট ভাগাভাগি করে নিতে হয়েছে নিউজিল্যান্ড ও অস্ট্রেলিয়াকে।

বৃষ্টির এই বাধায় নিউজিল্যান্ডই হয়তো বেশি হতাশ হয়েছে। কারণ তারাই ছিল কিছুটা এগিয়ে। ৩৩ ওভারে ২৩৫ রানের লক্ষ্যে ব্যাট করতে নেমে ৯ ওভারের মধ্যেই অস্ট্রেলিয়া হারিয়েছিল প্রথম সারির তিন ব্যাটসম্যান ডেভিড ওয়ার্নার, অ্যারন ফিঞ্চ ও মোইসেস হেনরিকের উইকেট। অস্ট্রেলিয়ার স্কোরবোর্ডে জমা হয়েছিল ৫৩ রান।

এর আগে টস জিতে ব্যাট করতে নেমে নিউজিল্যান্ডকে বড় সংগ্রহের স্বপ্ন দেখিয়েছিলেন অধিনায়ক কেইন উইলিয়ামসন, রস টেলর ও লুক রনকি। শতরানের ইনিংস খেলে দলকে সামনে থেকেই নেতৃত্ব দিয়েছেন উইলিয়ামস। রনকি খেলেছেন ৪৩ বলে ৬৫ রানের ঝড়ো ইনিংস। টেলরের ব্যাট থেকে এসেছে ৪৬ রান। কিন্তু শেষ পাঁচ ওভারে ভয়াবহ ব্যাটিং বিপর্যয়ের শিকার হয়ে নির্ধারিত ৪৬ ওভার ব্যাটিংই করতে পারেনি নিউজিল্যান্ড। অলআউট হয়ে গেছে এক ওভার বাকি থাকতেই। স্কোরবোর্ডে জমা হয়েছে ২৯১ রান।

অস্ট্রেলিয়ার পক্ষে দারুণ বোলিং করেছেন জশ হ্যাজেলউড। নয় ওভার বল করে দিয়েছেন ৫২ রান। নিয়েছেন ছয়টি উইকেট।